ল্যাভেন্ডার

19th December 2019 0 Comments

বাংলাদেশে এই ল্যাভেন্ডার প্রায় দেখতে পাওয়া যায় না বললেই চলে তবে এটা এখন বাংলাদেশে কোথাও কোথাও চাষ করা হচ্ছে। এই গাছ বর্ষ্জীবী গুল্ম। এই গাছ প্রায় এক থেকে দুই মিটার লম্বা হয়ে থাকে।  এর পাতাগুলি সবুজ বর্ণের হয়ে থাকে। এর পাতা লম্বা দুই থেকে ছয় সেমি লম্বা, এবং চওড়া চার থেকে ছয় সেমি হয়ে থাকে। এদের ফুলে বেশ গন্ধ থাকে। এই গন্ধের কারণে মশা দূরে থাকে। এই কারণে এটি বাড়ির দেওয়ালে অনেকে লাগিয়ে থাকে। এর ফুল শুকিয়ে চায়ের সাথে খাওয়া যায়। রান্নার মশলার কাজে এবং বিভিন্ন হার্বাল সেডিসিনে এর ব্যবহার হয়ে থাকে। এটা এশিয়ায় কিছু জায়গায় , আমেরিকা, অস্ট্রেলিয়া, ও ইউরোপে এই গাছ জন্মাতে দেখা যায়। ল্যাভেন্ডার ও এর তেল ঔষধ হিসেবে ব্যবহার করা হয়ে থাকে।

উপকারিতাঃ

১। শরীরের যেকোন স্হানে ব্যথা যেমনঃ জয়েন্টে ব্যথা, ঘাড়ে ব্যথা, মাংসপেশীতে ব্যথা। এসব ব্যথা হলে ল্যাভেন্ডার তেল ব্যবহার করলে উপকার পাওয়া যায়।

২। যাদের টেনশন এবং মানসিক চাপ একটু বেশি থাকে। তারা ঠিক মত ঘুমাতে পারে না।আর অনিদ্রার কারণে মাথা ব্যথা হয়। তাদের জন্য ল্যাভেন্ডার তেল হতে পারে খুবই উপকারী থেরাপি। এজন্য ঘুমাতে যাবার আগে সামান্য পরিমাণ ল্যাভেন্ডার তেল বালিশে ছিটিয়ে মেখে নিন। এর সৌরভে আপনার ভালো ঘুম আসবে।

৩। ল্যাভেন্ডার তেল চুলে লাগালে চুল খুব ভালো থাকে।

৪। ত্বকের কোষ মরে গেলে বা ত্বক খসখসে হলে ল্যাভেন্ডার তেল ব্যবহার করলে উপকার পাওয়া যায়।

৫। পোকা মাকড় কামড়ালে সেই কামড়ের জ্বালা পোড়া কমাতে কয়েক ফোঁটা ল্যাভেন্ডার অয়েল নিয়ে কামড়ানো জায়গাটিতে লাগালে জ্বালা পোড়া কমে যাবে।

৬। খাবারের সাথে ল্যাভেন্ডার তেল ব্যবহার করলে বদহজম, পেটে ফাঁপা, পেটে ব্যাথা, বমি বমি ভাব ভালো হয়।

৭। ল্যাভেন্ডার তেল ঘাড়, বুকে মালিশ কিংবা নিঃশ্বাসের সাথে ব্যবহার করলে শ্বাস সংক্রমণ রোগ উপকার হয়।

৮। শরীরের কোথাও কেটে গেলে কাঁটা জায়গাটিতে ল্যাভেন্ডার অয়েল লাগালে রক্ত পরা বন্ধ হয় ও ব্যাকটেরিয়ার আক্রমণ কমে যায়।

Leave a Comment

Your email address will not be published.