রক্তরাগ ফুল

12th December 2019 0 Comments

রক্তরাগ ( scarlet cordia) একটি চিরসবুজ উদ্ভিদ।  এর বৈজ্ঞানিক নাম Cordia sebestena। এটি   Boraginaceae পরিবারের একটি ফুল গাছ। অসাধারণ রঙ আর রূপের সঙ্গে এর রক্তরাগ নামটি বেশ মানানসই । গাছের শাখায় গুচ্ছ গুচ্ছ ফুলের শোভা এক পলকেই সবার দৃষ্টি কেড়ে নেয়। ফুলের উজ্জ্বল কমলা রঙ আর পাতার টিয়ে সবুজ রঙে কর্ডিয়ার অপূর্ব সাজ বেশ নজরকাড়া। গাছে ফুল থাকে প্রায় সারা বছরই, তবে শীত থেকে বসন্তে বেশি। রক্তরাগ গাছ বাংলাদেশের সর্বত্র জন্মায়। রক্তগাছ ঔষধ হিসেবে ব্যবহার করা হয়ে থাকে। 

বর্ণনা:
১। গাছ ছোটখাটো, ৫ থেকে ৮ মিটার উঁচু, চিরসবুজ, কখনো গুল্ম আকারের।
২। পাতা একক, ১০ থেকে ১৮ সেমি লম্বা, ডিম্বাকার বা উপবৃত্তাকার।
৩। ডালের আগায় গুচ্ছবদ্ধ ফুল ফোটে প্রায় সারা বছর।
৪।  ফুল ৩ থেকে ৫ সেমি লম্বা, পাপড়ি সংখ্যা ৬।
৫। ফল ডিম্বাকার, শাঁসাল, প্রায় ৪ সেমি লম্বা, বৃতিযুক্ত। বীজ আঠাল শাঁসে জড়ানো।
৬। শুষ্ক অঞ্চলে ভালো বাড়ে। বীজ, কলম ও দাবাকলমে চাষ।


উপকারিতাঃ

১। রক্তরাগ গাছের পাতা সিদ্ধ করে কুলকুচি করলে দাঁত ব্যথা ভালো হয়।

২। রক্তরাগ গাছের পাতা বেটে গায়ে লাগালে চুলকানি ভালো হয়।

৩। রক্তরাগ গাছের শেকড় সিদ্ধ করে ছাগলের দুধের সাথে খেলে আমাশয় ভালো হয়।

৪। রক্তরাগ গাছের পাতার রস নিয়মিত খেলে মুখের অরুচি ভাব কেটে যায়।

৫। অশ্বরোগ হলে রক্তরাগ গাছের পাতার রস খেলে উপকার পাওয়া যায়।

Leave a Comment

Your email address will not be published.