কিরপা উদ্ভিদ

কিরপা উদ্ভিদ
23rd April 2020 0 Comments

কিরপা একপ্রকার গুল্ম জাতীয় চিরহরিৎ উদ্ভিদ যা বাংলাদেশের সুন্দরবনে অহরহ দেখা যায়। এটি Combretaceae পরিবারের সদস্য, বৈজ্ঞানিক নাম: Lumnitzera recemosa। বাংলাদেশের ২০১২ সালের বন্যপ্রাণী (সংরক্ষণ ও নিরাপত্তা) আইনের তফসিল-৪ অনুযায়ী এ প্রজাতিটি সংরক্ষিত।শাখা-প্রশাখায় ঝাঁকালো এই গাছ লম্বায় গড়ে ৬ থেকে ৮ মিটার পর্যন্ত হয়ে থাকে। গাছের গোড়ায় শ্বাসমূল থাকে। এর বাকল ধূসর বর্ণ। পাতা ক্ষুদ্রাকিৃতি, বেশ পুরু এবং রসপূর্ণ তবে ফণিমনসার মতো ভঙ্গুর। পাতা ডিম্বাকৃতির হয়ে থাকে। মার্চ-এপ্রিল মৌসুমে ছোট ছোট সাদা রঙের ফুল ফোটে। এই গাছের দিকে তাকালে, দেখা যাবে তার চারপাশে সুন্দরভাবে ছড়িয়ে আছে গাছের মতোই শ্বাসমূল। এদের ফল সাধারণত চ্যাপ্টা এবং সরু হয়, ওজনেো খুব হালকা। এই গাছ অভিযোজন প্রক্রিয়ার মাধ্যমে বংশবৃদ্ধি করে থাকে।

কিরপা উদ্ভিদের উপকারিতাঃ

১। কিরপা বীজ পিষে ঘায়ে লাগালে দ্রুত ভালো হয়। কিরপা নাকল সিদ্ধ করে এই ক্বাথ সেবন করলে শরীরে শক্তি বাড়ে এছাড়াও দুর্বলতা কেটে যায়।
২। শরীরের কোন স্থানে ব্যথা হলে কিরপা মূল পিষে লাগালে ব্যথায় উপকার পাওয়া যায়।
৩। আমাশয় হলে কিরপা গাছের মুল সিদ্ধ করে ছাগলের দুধের সাথে এই ক্বাথ সেবন করলে আমাশয় দ্রুত ভালো হয়।
৪। প্রতিদিন সকালে খালি পেটে নিয়ম করে এই কিরপা মূলের ক্বাথ খেলে শরীরের বিভিন্ন রোগ প্রতিরোধ করে এবং হজমক্রিয়াকে ত্বরান্বিত করে শারীরিকভাবে সুস্থ রাখে।

Leave a Comment

Your email address will not be published.